আজঃ সোমবার, ১৮ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
২রা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, হেমন্তকাল

রাজনগরে অজ্ঞাত ব্যক্তি খুনের ঘটনায় গ্রেফতার ৩, ব্যবহৃত গাড়ি ও চাকু উদ্ধার (ভিডিওসহ)

প্রকাশিতঃ March 17th, 2021, 3:51 pm , |


 

রাজনগর বার্তা রিপোর্ট : মৌলভীবাজারের রাজনগরে গত শুক্রবার (১২ মার্চ) রাত আনুমানিক সাড়ে ১২ ঘটিকার সময় পার্শিপাড়া নামক স্থানে এক অজ্ঞাত ব্যক্তির মৃতদেহ পাওয়া যায়। রাজনগর থানা পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করার পর জানা যায়, শ্রীমঙ্গলের ব্যবসায়ী লক্ষ্মণ পাল তার ব্যবসায়ী পাওনা টাকা আদায় করতে রাজনগরে আসলে খুন হন। ঐদিনই নিহতের ভাই বাদী হয়ে রাজনগর থানায় মামলা দায়ের করেন (মামলা নং ০৬)। মামলা দায়েরের পর মৌলভীবাজার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জাকারিয়ার নির্দেশে ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মৌলভীবাজার সদর সার্কেল জিয়াউর রহমানের নেতৃত্বে রাজনগর থানা পুলিশ খুনের রহস্য উদঘাটনে গুপ্তচর নিয়োগ করে গত ১৬ মার্চ মঙ্গলবার রাজনগর থানার অফিসার ইনচার্জ আবুল হাসিম, পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) দেবদুলাল ধর, এসআই পরিতোষ পাল, এসআই সিদ্ধার্থ শেখর ঘোষ, এএসআই মৃতুঞ্জয় সরকার, এএসআই জালাল উদ্দিন ফোর্সসহ দিবারাত্রি অভিযান পরিচালনা করে মামলার রহস্য উদঘাটনসহ ঘটনার সাথে জড়িত তিনজনকে আটক করে। আটককৃতরা হলো ১। রাজনগর থানার আমির পুর গ্রামের মৃত জসিম মিয়ার ছেলে রিয়াদ মিয়া (২৪), উত্তর ঘরগাঁও গ্রামের রনজিত দেবের ছেলে রবেন্দ্র দেব (৩৬), আমির পুর গ্রামের জালাল মিয়ার ছেলে জয়নাল আবেদীন (২৮)। আটককৃতদের স্বীকারোক্তিতে খুন করার কাজে ব্যবহৃত রক্তাক্ত সিএনজি (মৌলভীবাজার থ- ১২-০১৬৫)ও রক্তাক্ত চাকু উদ্ধার করা হয়। আসামীদের দেওয়া তথ্য মতে জানা যায় ব্যবসায়ী নিহত লক্ষনপাল (৪০), পিতা: মৃত মনোরঞ্জন পাল সাং- মুড়াকরি, থানা- লাখাই, জেলা- হবিগঞ্জ তাহার ব্যবসার পাওনা টাকা আদায়ের জন্য প্রতি শুক্রবার রাজনগর এলাকায় আজাদের বাজার, মোকাম বাজার ও টেংরা বাজার আসতেন। আসামী বরেন্দ্র দেব এর সাথে পাওনা টাকা নিয়ে বেশ কিছুদিন পূর্ব থেকেই বিরোধ ছিল। তারই জের ধরে এলাকায় বখাটে ৫ জন আসামীর সাথে যোগাযোগ এবং আরও কতিপয় আসামীদের সাথে পরিকল্পনা করে ৪,০০,০০০/- টাকা দেওয়ার এবং তাহার সাথে থাকা টাকার প্রলোভন দেখিয়ে হত্যার পরিকল্পনা করে। ঘটনার আগের শুক্রবারও নিহত লক্ষ্মণ পালকে খুন করার প্রস্তুতি নিয়েও সফল হতে পারেনি এবং গত ১২ মার্চ ২০২১  লক্ষ্মণ পাল রাত ১০টার সময় আমজাদের বাজার আসলে আসামী বরেন্দ্র দেব সুকৌশলে তাহার সহযোগী হত্যার সাথে জড়িত ৫ জনকে দেখিয়ে দেয় এবং আসামীরা প্রথমে ০৩ জন সিএনজি নিয়ে আজাদের বাজার আসেন। এই সময় ভিকটিম সিএনজির জন্য অপেক্ষারত ছিল। ভিকটিম লক্ষ্মণ পাল উক্ত সিএনজি গাড়িতে উঠেন। পথিমধ্যে কমলাদিঘীর আগে আরো দুইজনকে গাড়িতে উঠানো হয়। কমলা দিঘীর মাঝামাঝি পশ্চিম রাস্তায় গেলে আসামীরা তাহাকে চেপে ধরেন এবং টাকা মালামাল নেওয়ার চেষ্টাকালে বাধা দেওয়ায় তাহাকে গলায় চাপ দিয়ে ধরে এবং উরুতে চাকু দিয়ে আঘাত করে রক্তাক্ত জখম করে। সিএনজি গাড়ি চলতি অবস্থায় লক্ষ্মণ পাল মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে। লক্ষ্মণ পালের সাথে নগদ ৫৫,০০০/- টাকা ও ব্যবহৃত একটি বাটনওয়ালা সিম্ফনি মোবাইল আসামীরা ছিনিয়ে নেয়। পাশীপাড়া নামক  স্হানে আসামীরা নিরাপদ মনে করে লক্ষ্মণ পালের মৃতদেহ রাস্তার উপর ফেলে দেয়। আসামীরা কমলগঞ্জ থানা হয়ে মৌলভীবাজার চলে যায়। ঘটনার সাথে জড়িত অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতার অভিযান অব্যাহত আছে।





 


এই বিভাগের আরো খবর

মতামত দিন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
আক্তার হোসেন সাগর

ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ
মোঃ শহীদ বকস

প্রধান উপদেষ্টাঃ
সৈয়দা জোহরা আলাউদ্দিন

উপদেষ্টা মণ্ডলীর সদস্যঃ
আকলু মিয়া চৌধুরী
আউয়াল কালাম বেগ
এম. রহমান লতিফ

সম্পাদক কর্তৃক সেন্ট্রাল রোড, রাজনগর, মৌলভীবাজার থেকে প্রকাশিত ও প্রচারিত।
মোবাইলঃ ০১৭১৫-৪০৫১০৪
Email: [email protected] | [email protected] (সম্পাদক)


Developed by - Great IT
error: Content is protected !!